নারী নির্যাতন মামলায় কণ্ঠশিল্পী সালমার স্বামী কারাগারে

বিনোদন

নারী ও শিশু নির্যাতনের মামলায় কণ্ঠশিল্পী মৌসুমী আক্তার সালমার স্বামী সানাউল্লাহ নূরী সাগরের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। বুধবার কক্সবাজার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক নুরুল ইসলাম এ আদেশ দেন।

সাগর তার সাবেক স্ত্রী পুষ্মীর দায়ের করা মামলার হাজিরা দিতে আজ আদালতে উপস্থিত ছিলেন। এ সময় তার আইনজীবী জামিনের আবেদন করেন। পরে বিচারক তা নামঞ্জুর করে সাগরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এর আগে, গত বছরের নভেম্বরে কক্সবাজার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এ মামলা দায়ের করেন সাগরের প্রথম স্ত্রী তাসনিয়া মুনিয়াত পুষ্মীর মা দিলারা খানম। মামলা নম্বর-২৫৪, ধারা-নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন, ২০০০ এর ১১ (গ), ১১(গ)/৩০ ধারা। এই মামলায় সাগরের পাশাপাশি তার বাবা-মাকেও আসামি করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: কংগ্রেস সভাপতির পদ থেকে রাহুল গান্ধীর পদত্যাগ

গত বছর ডিসেম্বরে ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটের ছেলে সানাউল্লাহ নূরে সাগরকে বিয়ে করেন ২০০৬ সালের ক্লোজআপ ওয়ান তারকা সালমা। ২০১১ সালে পারিবারিকভাবে তিনি শিবলী সাদিককে বিয়ে করেন। পরের বছর ১ জানুয়ারি তাদের সংসারে কন্যা সন্তান স্নেহা’র জন্ম। সাংসারিক দ্বন্দ্বের কারণে ২০১৬ সালের নভেম্বরে তাদের বিচ্ছেদ হয়।

এর আগে ২০১৪ সালের ৩ জুন সাগর ঢাকার বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী তাসনিয়া মুনিয়াত পুষ্মীকে বিয়ে করেন। স্ত্রীর অনুমতি না নিয়ে দ্বিতীয় বিয়ে, যৌতুক দাবি ও নির্যাতনএর অভিযোগ এনে কক্সবাজার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা দায়ের করেন প্রথম স্ত্রীর মা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *